নির্বাচনের হতাশা কাটাতেই লংমার্চ করেছে বিএনপি:হাছান

0
34

1দৈনিক বার্তা: দশম সংসদ নির্বাচনে অংশ না নেয়ার হতাশা কাটাতেই বিএনপি লংমার্চ করেছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক হাছান মাহমুদ। এসময় তিনি আরও বলেন, রানা প্লাজা দুর্ঘটনার পর  দেশি-বিদেশি চক্র মায়াকান্না করে  দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করছে। এ ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ারও আহ্বান জানান হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটিতে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন। বাংলাদেশ আওয়ামী হকার্স লীগ এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।সংগঠনের সভাপতি এস এম জাকারিয়া হানিফের সভাপতিতে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি এম এ সাদেক, সাধারণ সম্পাদক মো: জায়েদ আলী প্রমুখ।

আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত এককভাবে খালেদা জিয়া ও তারেক জিয়ার আর এ সিদ্ধান্ত দলের কাছে তাদেরকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছে।বিএনপি ক্ষমতায় থাকার সময় কেনো তিস্তার পানি আদায়ে সরব হয়নি? এমন প্রশ্নও করেন তিনি।

রানা প্লাজায় ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসিত করা হয়নি- বিএনপি নেতাদের এমন অভিযোগের জবাবে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাছান মাহমুদ বলেন, যে দল রানা প্লাজার ক্ষতিগ্রস্ত শ্রমিকদের পুনর্বাসনে অংশ নেয়নি, তাদের মুখে এ কথা মানায় না।

তিনি বলেন, রানা প্লাজা ধ্বসে পড়ার ১ ঘন্টার মাথায় সরকার সাহায্য প্রদান শুর“ করে। আমাদের দলের নেতাকর্মীরা উদ্ধার কাজে অংশগ্রহণ করেছে। আর বিএনপি নেতৃবৃন্দ আন্দোলন ও লংমার্চ করে কোটি কোটি টাকা খরচ করেছেন। তারা রানা প্লাজার ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে দাঁড়াননি।

হাছান মাহমুদ বলেন, দেশের গার্মেন্টস শিল্প নিয়ে এখন বিএনপি ষড়যন্ত্র করছে। ষড়যন্ত্র করছেন কিছু বিদেশী নাগরিক। রানা প্লাজার শ্রমিকদের সাহার্যার্থে বিদেশি বন্ধুরা বহু প্রতিশ্র“তি দিয়েছিলেন । কিন্তু তারা তা পূরণ করলেন না। শেখ হাসিনার সরকার নানা বাধা সত্ত্বেও এগিয়ে যাচ্ছে। তাঁর সরকারের উন্নয়নের চাকাকে থামানো যাবে না।

তিনি বলেন, ৫ জানুয়ারি নির্বাচনে অংশ না নেওয়ায় বিএনপির নেতাকর্মীরা হতাশ। হতাশ কর্মীদের চাঙা করতে লংমার্চের নামে বিএনপি তিস্তা অভিমুখে পিকনিক করেছে। তাদের জানা উচিত, লংমার্চে কখনো পানি আসে না।

তিস্তা চুক্তি সম্পন্ন করার বিষয়ে আশা প্রকাশ করে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, ১০ এপ্রিল ভারত সরকার চিঠি দিয়ে জানিয়েছে, খুব শিগগিরই তিস্তার পানি চুক্তি সম্পাদন করা হবে।

হাছান মাহমুদ বলেন, স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিরা বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে মিথ্যাচার করছে। ইতিহাস বিকৃত করছে। ১৯৭৮ সালে জিয়া রাষ্ট্রপতি থাকাকালীন সময়ে মওলানা ভাসানী লংমার্চ করেছিলেন। সে লংমার্চের চাল, গম বিএনপি খোলাবাজারে বিক্রি করে দিয়েছিল। এই হচ্ছে তাদের লুটপাটের নমুনা।