দুই মামলায় ফখরুলের চার্জ শুনানি ৮ জুন

0
31

2দৈনিক বার্তা : বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বিরুদ্ধে দায়ের করা পল্টন থানা ও শাহজাহানপুর থানার দ্রুত বিচার আইনের মামলা দু’টির চার্জ শুনানি হবে আগামী ৮ জুন। ফখরুল আদালতে উপস্থিত থাকা সত্ত্বেও শুনানি হয়নি।

মঙ্গলবার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট তারেক মাইনুল ইসলাম ভূঁইয়ার আদালতে মামলা দু’টির শুনানি হওয়ার কথা ছিল।

ফখরুলের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া জানান, মির্জা ফখরুল আদালতে হাজির থাকার পরও মামলার নথি না থাকায় মামলা দু’টির চার্জ শুনানি হয়নি। আগামী ৮ জুন এ শুনানির জন্য দিন ধার্য হয়েছে।গাড়ি ভাংচুরের তিন মামলায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলটির ২৬ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানির নতুন এ তারিখ  দেয় আদালত।

আসামিদের আইনজীবী তাহেরুল ইসলাম তৌহিদ জানান, মামলার আসামি গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, হাবীব-উন-নবী খান সোহেলসহ কয়েকজন কারাগারে থাকায় সময় চেয়ে আবেদন করা হলে আদালত অভিযোগ গঠনের জন্য ৮ জুন দিন ঠিক করেন।এদিন মির্জা ফখরুল ছাড়াও বিএনপি যুগ্ম-মহাসচিব আবদুল্লাহ আল নোমান,ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানীসহ কয়েকজন আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

গত বছরের মার্চ মাসে রাজপথে ত্রাস ও যানবাহনে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টির অভিযোগে দায়ের করা পৃথক দুই মামলায় হাজিরা দিতে আদালতে হাজির হন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ফখরুল ইসলামের অন্যতম আইনজীবী জয়নুল আবেদীন মেজবাহবিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।তিনি বলেন, মামলা দুইটির মধ্যে ১টি পল্টন থানা ও ১টি শাহজাহানপুর থানার দ্রুত বিচার আইনের মামলা। দু’টি মামলায় চার্জ শুনানির জন্য দিন ধার্য ছিল।

তিনি আরও বলেন, মামলা দু’টির অন্যতম আসামি গয়েশ্বর চন্দ্র রায় ও আমান উল্লাহ আমান কারাগারে আটক থাকায় মঙ্গলবার চার্জ শুনানির জন্য সময়ের আবেদন করা হয়। মির্জা ফখরুল ইসলামের ব্যক্তিগত হাজিরা  থেকে অব্যাহতি চাওয়া হবে।

২০১৩ সালের ২ মার্চ বিএনপির একটি মিছিল দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে মগবাজারের দিকে যাওয়ার সময় গাড়ি ভাঙচুরসহ জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টির অভিযোগে পল্টন থানায় ২টি এবং শাহজাহানপুর থানায় একটি মামলা করে পুলিশ।গত বছরের ২৪ ডিসেম্বর এ মামলায় অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।