আইএসের বিরুদ্ধে জোট গড়তে চায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

mideast-gulf-torn-over-iraq

দৈনিকবার্তা -ঢাকা,২৮আগষ্ট : দ্য ইসলামিক স্টেট অব ইরাক অ্যান্ড সিরিয়ার (আইএসআইএস/আইএস) জঙ্গি বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়তে বিভিন্ন দেশের অংশগ্রহণে জোট করতে আগ্রহী মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র৷আইএস বাহিনীর ওপর সামরিক অভিযান চালাতে বিভিন্ন দেশের অংশগ্রহণে এ জোট গড়তে চায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র৷ বুধবার ওবামা প্রশাসনের এক কর্মকর্তা সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য জানান৷

মার্কিনি মুখপাত্র জানান, ব্রিটেন ও অস্ট্রেলিয়া জোটে যোগ দিতে রাজি আছে৷ এদিকে, জার্মানি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ অন্যান্য দেশের সঙ্গে পরমর্শ করবে৷ কিন্তু সামরিক অভিযানে অংশ নেবে কিনা, তা স্পষ্টভাবে জানায়নি৷মার্কিন কর্মকর্তা জেন সাকি সাংবাদিকদের বলেন, আমরা আমাদের অন্যান্য বন্ধু দেশগুলোর সঙ্গে আলোচনা করছি৷ আমরা আলোচনা করছি, কোন দেশ কোনভাবে অংশ নিতে পারে; সেটা হতে পারে- মানবিক, সামরিক, গোয়েন্দা তথ্য বিনিময় ও কূটনৈতিকভাবে৷

তবে মার্কিনি এ কর্মকর্তা জানাননি, কতটি দেশ এই জোটে অংশ নেবে৷ তবে বৃটেন ও ফ্রান্স এর আগে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে ২০০৩ সালে ইরাক হামলায় অংশ নিয়েছিল৷ যদিও এই বাহিনীতে তখন ৩৮টি দেশের অংশগ্রহণ ছিল৷  মার্কিন কর্মকর্তা আরো জানান, প্রয়োজনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র একাই এই জিহাদিদের বিরুদ্ধে লড়াই করতে পারে৷  প্রসঙ্গত, দ্য ইসলামিক স্টেট অব ইরাক অ্যান্ড সিরিয়া (আইএসআইএস) জঙ্গি বাহিনী ইরাক ও পূর্ব সিরিয়ার কিছু অংশ দখল করে সেখানে খেলাফত রাষ্ট্র কায়েম করেছে৷

সেখানে ভিন্ন মতাবলম্বীদের গলা কেটে কিংবা গুলি করে হত্যা করছে তারা৷ এ ছাড়া ভিন্ন ধর্মাবলম্বীদের জোর করে ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত করছে৷ তারা অন্যান্য ধর্মের প্রার্থনাস্থানও গুঁড়িয়ে দিয়েছে৷ ফলে, এই ধর্মান্ধ ওহাবী মতাবলম্বী জঙ্গিদের কারণে সাধারণ মানুষের মনে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে৷