ডিএমপি কমিশনারকে হাইকোর্টে তলব

hw9bktrf-e1409578328671

দৈনিকবার্তা: ডিএমপি কমিশনার বেনজীর আহমেদ ডিএমপি কমিশনারকে হাইকোর্টে তলব ঢাকা: আজিমপুর কবরস্থানের সীমানা পুর্ননির্মাণে ঢাকা সিটি করপোরেশনকে সহায়তা না করায় ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার বেনজীর আহমেদসহ তিনজনকে তলব করেছেন হাইকোর্ট।

সোমবার বিচারপতি ফারাহ মাহবুব ও বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। আগামী ১০ সেপ্টেম্বর তাদেরকে আদালতে হাজির হয়ে এ বিষয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে।

অন্য যে দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে হাজির হতে বলা হয়েছে তারা হলেন- লালবাগ জোনের উপ-কমিশনার ও লালবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা। আজিমপুর কবরস্থানের সীমানা পুর্ননির্মাণে সিটি করপোরেশনকে কেন পুলিশ সহায়তা করতে পারলো না তার ব্যাখা জানতেই তাদেরকে আদালতে তলব করা হয়েছে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের পক্ষে আদালতে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট সালাউদ্দিন। এসময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল আমাতুল করিম।

তিনি বলেন, ‘আমি আদালতে উপস্থিত ছিলাম কিন্তু কিছু বলিনি। আমি আদালতে বসা ছিলাম এক পর্যায়ে শুনতে পাই আজিমপুর কবরস্থানের সীমানা পুর্ননির্মাণে সহায়তা না করায় পুলিশের ডিএমপি কমিশনারসহ তিনজনকে আদালত তলব করেছেন।’ তিনি জানান, এর আগে ১১ বার চেষ্টা করেও সীমানা পুর্ননির্মাণ করা যায়নি। সীমানা নির্মাণে পুলিশের সহায়তা না পাওয়ায় কোর্ট অব কনটেম্পটের (আদালত অবমাননা) আবেদন করা হলে এ আদেশ দেয়া হয়।

উল্লেখ, আজিমপুর কবরস্থানে জাকির হোসেন নামের এক ব্যাক্তি তার বাবার কবর ও আগের সীমানা প্রাচীর ভেঙ্গে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন রাস্তা তৈরি করেছিলো। এর বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে জাকির হোসেন হাইকোর্টে রিট করেন। রিটের প্রেক্ষিতে আদালত আগের জায়গায় সীমনা পুননির্মাণ করতে নির্দেশ দেন। কিন্তু আদালতের এ আদেশ না মানায় সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার আবেদন করা হয়। পরে আদালত সীমানা প্রাচীর পুননির্মাণে প্রয়োজনীয় সংখ্যক জনবল দিতে ডিএমপি কমিশনারকে নির্দেশ দেন।
কিন্তু এ কাজে দক্ষিণ সিটি করপোরশনকে ডিএমপি কোনো সহযোগিতা করেনি বলে আদালতকে অবহিত করা হয়।