শালীনতা-ভদ্রতাকে দুর্বলতা ভাববেন না:সৈয়দ আশরাফ

সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম-ashraf

দৈনিকবার্তা-ঢাকা, ৬ জানুয়ারি: আওয়ামী লীগ অশ্লীল কথা, মিথ্যা কথা বলতে না পারায় বিএনপি সেটাকে দুর্বলতা মনে করছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম৷সোমবার সন্ধ্যায় পূর্ব লন্ডনের এট্রিয়াম হলে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগ আযোজিত ‘গণতন্ত্রের বিজয় দিবস’ উদযাপনের সভায় এ মন্তব্য করেন সৈয়দ আশরাফ৷বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সামপ্রতিক বক্তব্যেরও তীব্র সমালোচনা করেন সৈয়দ আশরাফ৷বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড,সামরিক শাসন, খালেদা জিয়ার মিথ্যাচার নিয়েও বেশ জোরালো ভাষায় কথা বলেন তিনি৷আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় সরকার মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন,যেহেতু আমরা অশ্লীল কথা বলতে পারি না,মিথ্যা বলতে পারি না সেটাকে তারা (বিএনপি) দুর্বলতা মনে করে৷

আশরাফ দাবি করেন, অনেক সময় অনেক কথা বলতে ইচ্ছা করে৷ কিন্তু শালীনতার জন্য মুখ দিয়ে তা আসে না৷সৈয়দ আশরাফ বলেন, আজকে খালেদা জিয়া গণতন্ত্রের মহারানী৷ কারে শিখাইতে চান? বারবার মিথ্যা কথা বললেই কি সত্য মিথ্যা হয়ে যাবে? আপনাদের এ দেশের মানুষ চিনে না? কীভাবে আপনার স্বামী ক্ষমতায় আসলেন? কীভাবে তিনি বঙ্গবন্ধুর হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত ছিলেন? বারবার তিনি বাংলাদেশের গণতন্ত্রকে হত্যা করেছেন সেই ইতিহাস কি বাংলাদেশের কেউ জানে না?জিয়াউর রহমান ও এইচ এম এরশাদকে স্বৈরশাসক আখ্যা দিয়ে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী বলেন, স্বৈরশাসকেরাই আজকে আমাদেরকে গণতন্ত্র শিখায়৷ আপনারা কি মনে করেন, সারা বাংলাদেশের মানুষ আহাম্মক?সৈয়দ আশরাফ বলেন,শেখ হাসিনা রাতের অন্ধকারে বন্দুক নিয়ে সালাম দিয়ে ক্ষমতায় আসেন নাই৷ এটা খালেদা জিয়ার জামাই করেছে, রওশন এরশাদের জামাই করেছে৷বঙ্গবন্ধুর পথ ছাড়া বাংলাদেশের অন্য কোনো বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক৷সভায় সভাপতিত্ব করেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জালাল উদ্দিন৷ সভা পরিচালনা করেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী৷