আ.লীগ মৌমাছির চাক, ৭ হাত পানির নিচেও কামড়াবে: মায়া

q99zu6a9-e1407337300629

দৈনিকবার্তা-ঢাকা ১২ জানুয়ারি: আওয়ামী লীগ পারে না এমন কিছু নেই। আওয়ামী লীগ হচ্ছে মৌমাছির চাক। সেই চাকে ঢিল মারার চেষ্টা করবেন না। আমরা সাত হাত পানির নিচে গিয়েও কামড়ে দেবো।

রোববার বিকেলে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে আয়োজিত এক বর্ধিত সভায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ করে এসব কথা বলেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রতাবর্তন দিবস উপলক্ষে সোমবার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জনসভার সফল করার লক্ষ্যে এ বর্ধিত সভার আয়োজন করা হয়। আওয়ামী লীগ সোমবার জনসভা করার কথা বললেও এখনো পর্যন্ত রাজধানীতে সভা-সমাবেশের ওপর পুলিশের নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

বিএনপি চেয়ারপারসনকে ‘ভুয়া’ ও ‘মিথ্যাবাদী’ আখ্যায়িত করে মায়া বলেন, ‘উনার নামের আগে-পিছনে যে পদবী দেবেন তাই খাবে। ভারতের বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ তাকে (খালেদা জিয়াকে) ফোন করেছেন- এটা মিথ্যাচার। এ জন্য গোটা জাতির মাথা হেঁট হয়ে গেছে। উনার লজ্জা না থাকলেও আমাদের লজ্জা হয়। এই মিথ্যাচারের জন্য তার শাস্তি হওয়া উচিৎ। মামলা করা উচিৎ।’

অবরোধ প্রসঙ্গে এই মন্ত্রী বলেন, ‘খালেদা জিয়া অবরোধের নামে ন্যক্কারজনক ঘটনা ঘটিয়েছেন। মুসল্লিদের কষ্ট দিয়েছেন। মুসল্লিরা দোয়া করেছেন যারা এরকম কাজ করেছে তাদের শাস্তি দেয়ার জন্য।’

সভায় উপস্থিত খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম বলেন, ‘বিএনপি অবরোধের নামে যে পরিস্থিতির সৃষ্টি করছে তা দেশে কেউই মানে না। মিথ্যাচারের জন্য দেশের মানুষ লজ্জা পেয়েছে কিন্তু তার কোনো লজ্জা নাই। আসলে তারা মিথ্যাচারের ওপর দাঁড়িয়ে আছে।’

মহানগরের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এমএ আজিজের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন- সিনিয়র সহসভাপতি ফয়েজ উদ্দিন মিয়া, মুকুল চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আব্দুল হক সবুজ, দপ্তর সম্পাদক শহিদুল ইসলাম মিলন প্রমুখ।