খুলনার নগরপিতা তালুকদার খালেক

খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনের মেয়র পদে বেসরকারিভাবে নৌকা প্রতীক নিয়ে আওয়ামী লীগের প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেক নির্বাচিত হয়েছেন। স্থগিত তিন কেন্দ্রের ভোট ছাড়াই তিনি বিএনপির প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জুর চেয়ে প্রায় ৭০ হাজার ভোট বেশি পেয়েছেন। ২৮৬ কেন্দ্রের (তিনটি কেন্দ্রের ফল স্থগিত) ফলাফলে দেখা গেছে, তালুকদার আবদুল খালেক নৌকা প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন এক লাখ ৭৬ হাজার ৯০২৯ ভোট। অন্যদিকে, ধানের শীষ প্রতীকে নজরুল ইসলাম মঞ্জু পেয়েছেন ১ লাখ ৮ হাজার ৯৫৬ ভোট।

মঙ্গলবারের এ নির্বাচনে জালভোট প্রদানের অভিযোগে ৩০নং ওয়ার্ডের রুপসা হাইস্কুল ও রুপসা সরকারি প্রামিক বিদ্যালয় কেন্দ্র, ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের ইকবাল নগর মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র, ২২নং ওয়ার্ডের ফাতেমা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র এবং লবনচোরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ বন্ধ ঘোষণা করা হয়। তবে ফাতেমা উচ্চ বিদ্যালয় ৮৫টি জালভোট বাতিল করে আধাঘণ্টা পরে পুনরায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়। এছাড়া খুলনা জিলা স্কুল ভোটকেন্দ্র সকাল থেকেই ছিল ভোটার শূন্য।

নির্বাচনে মেয়র পদে পাঁচ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তারা হলেন- আ’লীগের তালুকদার আবদুল খালেক, বিএনপি মনোনীত নজরুল ইসলাম মঞ্জু (ধানের শীষ), জাতীয় পার্টি মনোনীত শফিকুর রহমান মুশফিক (লাঙল), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত মাওলানা মুজ্জাম্মিল হক (হাত পাখা) ও সিপিবি মনোনীত মো. মিজানুর রহমান বাবু (কাস্তে)।

খুলনা সিটিতে মোট ভোটার ৪ লাখ ৯৩ হাজার ৯৩ জন। এর মধ্যে পুরুষ ২ লাখ ৪৮ হাজার ৯৮৬ ও নারী ২ লাখ ৪৪ হাজার ১০৭ জন। ভোট গ্রহণ কর্মকর্তা ৪ হাজার ৯৭২ জন। নির্বাচনে ভোট কেন্দ্র ২৮৯টি। এর মধ্যে ২টি কেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহার করা হবে। এ ২টি কেন্দ্রের ১০টি বুথের ২ হাজার ৯৭৮ জন ভোটার ইভিএমে ভোট দেওয়ার সুযোগ পেয়েছেন।