খালেদা জিয়ার জামিন বহাল

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে হাইকোর্টের দেওয়া জামিন বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। একই সঙ্গে খালেদা জিয়া তার সাজার বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যে আপিল দায়ের করেছিলেন তা ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে নিস্পত্তির নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। হাইকোর্টে খালেদা জিয়ার জামিনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ এবং দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আপিল খারিজ করে আজ বুধবার প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন চার বিচারপতির বেঞ্চ এ রায় দেন।

গতকাল মঙ্গলবার খালেদা জিয়াকে হাইকোর্টের দেওয়া জামিনের বিরুদ্ধে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষের আপিলের ওপর শুনানি শেষ হয়। পরে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ রায়ের জন্য বুধবার দিন ধার্য করেন। মামলাটি আজকের কার্যতালিকার এক নম্বরে ছিল। এর আগে ৯ মে আপিল বিভাগ রাষ্ট্রপক্ষ ও দুদকের আপিলের ওপর মঙ্গলবার রায়ের দিন ধার্য করেন। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় পাঁচ বছরের সাজা দেওয়ার পর গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কারাগারেই আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন। গত ১২ মার্চ হাইকোর্ট এ মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন মঞ্জুর করলে দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষ ওই আদেশের বিরুদ্ধে আপিল বিভাগে যায়। গত ১৯ মার্চ খালেদার জামিন স্থগিত দুদক ও রাষ্ট্রপক্ষকে আপিলের অনুমতি দিয়ে আপিল বিভাগ ৮ মে আপিলের শুনানি ধার্য করেন।