গাজীপুরে স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসি

গাজীপুরে স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্ত আসামিকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। গাজীপুরের জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক একেএম এনামুল হক রবিবার ওই রায় দেন। ফাঁসির দ-প্রাপ্তের নাম মোঃ আনিছুর রহমান (৩৫)। সে দিনাজপুরের ফুলবাড়ি থানার উত্তরকৃষ্ণপুর এলাকার মৃত আনসার আলীর ছেলে। রায় ঘোষণাকালে দন্ডপ্রাপ্ত আসামি আদালতে উপস্থিত ছিল।

গাজীপুর আদালতের পুলিশ পরিদর্শক মোঃ রবিউল ইসলাম ও মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, পঞ্চগড় জেলা সদরের আমলাহার এলাকার মঞ্জুর হকের মেয়ে মৌসুমি আক্তারকে (২১) পারিবারিকভাবে বিয়ে করে আনিছুর রহমান। বিয়ের পর তারা গাজীপুরে টঙ্গীর দক্ষিণ আউচপাড়া বালুরমাঠ বস্তি এলাকার সিরাজ মিয়ার বাড়িতে ভাড়া থাকত। ২০১৫ সালের ৫ আগস্ট সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ভাড়া বাসায় স্বামী আনিছুর রহমান বটি দিয়ে কুপিয়ে মৌসুমিকে হত্যা করে। পরে লাশ গ্রামের বাড়িতে নেয়ার জন্য সে এলাকার লোকজনের নিকট থেকে টাকা তোলে। পরে স্থানীয় এক মহিলা দিয়ে মৃতদেহের গোসল করিয়ে লাশ ঘটনাস্থল থেকে নিয়ে যাওয়ার সময় এলাকাবাসীর সন্দেহ হলে তারা পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আনিছুর রহমানকে গ্রেপ্তার করে এবং লাশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নিহতের চাচাতো ভাই তরিকুল ইসলাম রাসেল বাদি হয়ে টঙ্গী মডেল থানায় মামলা করেন।

তদন্ত শেষে আনিছুর রহমানকে অভিযুক্ত করে আদলতে চার্জশীট দাখিল করেন টঙ্গী মডেল থানা পুলিশ। স্বাক্ষ্য গ্রহণ ও শুনানী শেষে রবিবার আদালতের বিচারক ওই দ- ঘোষণা করেন।

মামলায় রাষ্ট্রপক্ষে মো. হারিছ উদ্দিন আহম্মদ এবং আসামি পক্ষে অ্যাডভোকেট শহিদুল ইসলাম মামলা পরিচালনা করেন।