নতুন ভোটার অন্তভর্’ক্তি, নিহত ভোটারদের নাম কর্তন ও ভোটার স্থানান্তরসহ ভোটার তালিকা হালনাগাদ করণ কার্যক্রম পরিদর্শন করতে শুক্রবার নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার গাজীপুর সদর ও বেগম কবিতা খানম শ্রীপুর উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে যান। পরিদর্শনে ইসি তারা ভোটার হালনাগাদসহ সকল কার্যক্রমে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

গাজীপুর সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আসলাম মিয়া জানান, শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার গাজীপুর সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসে যান। সেখানে তিনি নতুন ভোটার অন্তভর্’ক্তি, নিহত ভোটারদের নাম কর্তন ও ভোটার স্থানান্তরসহ ভোটার তালিকা হালনাগাদ করণ কার্যক্রম পরিদর্শণ পরিদর্শণ করেন। পরিদর্শণ শেষে তিনি সোয়া ১২টার দিকে অফিস ত্যাগ করেন। গাজীপুর সদরের নতুন ভোটার হালনাগাদের কার্যক্রম শুরু হয় ২৬জুন থেকে ১৫জুলাই। আর এ উপজেলার নিবন্ধন কার্যক্রম ১৮জুলাই শুরু হয়েছে। এ সময়ে ৭০হাজারের মত নতুন ভোটারের তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে এবং ১২হাজার ১৫৫জন নতুন ভোটার নিবন্ধন করেছেন। নিহত ৩হাজার ৬০০জন ভোটার তালিকা থেকে কর্তন এবং প্রায় ৪শ ভোটার নির্বাচনী এলাকা স্থানান্তর করেছেন। এসব কার্যক্রম চলবে ২৯অক্টোবর পর্যন্ত।

শ্রীপুর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা সুলতানা এলিন জানান, শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে বেগম কবিতা পারভিন শ্রীপুর উপজেলা নির্বাচন অফিস পরিদর্শণে আসেন। তাদের উপজেলায় ২৩ এপ্রিল থেকে ১৩মে পর্যন্ত ভোটার হালনাগাদ কার্যক্রম শেষ হয়েছে। এ যাবত ২৮হাজার ৩ শতাধিক ভোটার হালনাগাদ, ২ হাজার ৮২৯জন ভোটরের নাম কর্তন, স্থানান্তর করেছে ৩১১ ভোটার । বর্তমানে এ উপজেলায় ভোটার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ৪৬ হাজার ৩৭১জন। যাদের জন্ম ২০০৪ সালের ১জানুয়ারির আগে তারা এ ভোটার তালিকায় অন্তর্ভ’ক্ত হতে পেরেছে। এর আগে শুক্রবার সকালে গাজীপুরের পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. তারেফুজ্জামান তাদের গাজীপুর সার্কিট হাউসে স্বাক্ষাত করেন।