গুগলে ‘ইডিয়ট’ লিখলেই কেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ছবি আসে, এই নিয়ে প্রশ্নের মুখে পড়তে হয়েছিল গুগল সিইও সুন্দর পিচাইকে। সেই একইরকম প্রশ্ন গত বছরের ডিসেম্বরে তুলছিল পাকিস্তানও। গুগলে ‘ভিখারি’ লিখলেই ভেসে উঠত পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের ছবি। এবার দ্বিতীয়বারের মতো আবারও গুগলে ইংরেজিতে ‘ভিখারি/bhikhari’ লিখে সার্চ করলে আসছে ইমরানের ছবি।

জানা গেছে, এনিয়ে সামাজিক মাধ্যমে ইমরান খানকে নিয়ে শুরু হয়েছে ব্যঙ্গ। পাকিস্তানের বর্তমান ভঙ্গুর অর্থনীতির কারণে ইমরান খানের এমন অবদমন ও হাসির খোরাক হওয়ার নেপথ্যে প্রধান কারণ হিসেবে দেখা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্র থেকে শুরু করে আইএমএফ কিংবা বিশ্বব্যাংকে ঋণ চেয়ে বেড়ানোর কারণেই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে এমন ব্যঙ্গ আবারও করা হচ্ছে বলে ধারণা। তবে এনিয়ে পাকিস্তানের পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত কোন মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালে পাকিস্তানের পাঞ্জাব বিধানসভায় এক প্রস্তাবে বলা হয়- গুগল সিইওকে ডেকে জিজ্ঞাসা করা হবে যে কেন ‘ভিখারি’ লিখে গুগলে সার্চ করলেই পাক প্রধানমন্ত্রীর ছবি আসছে। এর কিছু দিন আগে গুগলে ইংরেজিতে ‘ইডিয়ট’ শব্দটি সার্চ করলে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ছবি দেখাত।সেসময় এসব অভিযোগ অস্বীকার করে গুগল। এই সার্চ জায়ান্টটি জানায়, গুগল বরাবর নিরপেক্ষ। কোনওরকম রাজনৈতিক পক্ষপাতিত্ব গুগল করেনি, করবেও না। এই সমস্ত অভিযোগ যুক্তিহীন।’