রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) পপুলেশন সায়েন্স এন্ড হিউম্যান রিসোর্স ডেভেলপমেন্ট বিভাগের নাম পরিবর্তন করে ফলিত পরিসংখ্যান করার দাবিতে আমরণ অনশন করেছে শিক্ষার্থীরা। বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে একাত্মতা প্রকাশ করেন অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন খান।
একাত্মতা প্রকাশ করে ফরিদ উদ্দিন খান বলেন, বিষয়টি খুব সংবেদনশীল। গত দুইদিন থেকে শিক্ষার্থীরা এভাবে না খেয়ে বসে আছে। মূলত বিবেকের তাড়না থেকেই এখানে আসা। আমি তাদের দাবির সাথে একমত প্রকাশ করছি। কারণ দাবিটি যৌক্তিক। বিশ্ববিদ্যালয়ে যেহেতু ফলিত গণিত, ফলিত রসায়ন নামে বিভাগ রয়েছে তাহলে ফলিত পরিসংখ্যান হওয়া খুব কঠিন কিছু না। তারা তো এখানে অযোক্তিক দাবি করেনি। যে পাশ করিয়ে দিতে হবে বা নকল করার সুযোগ দিতে হবে। তারা শুধু নাম পরির্বতনের জন্য বলছে। তাদের পড়াশুনার সাথে পরিসংখ্যান বিভাগের আশি শতাংশ মিল রয়েছে তাহলে ফলিত পরিসংখ্যান হওয়াতে কোন বাধা দেখছি না। আশা করছি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন এব্যাপারে দ্রুত পদক্ষেপ নিবে।

দুইদিনের অনশনে এই পর্যন্ত বিশ শিক্ষার্থী অসুস্থ হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত এ কর্মসূচি অব্যাহত রয়েছে। অসুস্থ শিক্ষার্থীদের মধ্যে তিনজন গতকাল রাতে আর বাকি সবাই আজ দিনের বিভিন্ন সময় অসুস্থ হয়ে পড়ে। তাদেরকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।
প্রসঙ্গত, পিএসসি’তে বিষয় কোড অন্তর্ভুক্তের দাবি জানিয়ে গত ১৯ জানুয়ারি থেকে ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করে মানববন্ধন, অবস্থান কর্মসূচিসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে আসছে ওই বিভাগের শিক্ষার্থীরা। তবে বর্তমানে বিভাগের নাম পরিবর্তন করে ফলিত পরিসংখ্যান করার দাবিতে আমরণ অনশন শুরু করেছে তারা।

আশিক ইসলাম
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়