করোনা পরীক্ষার ফলাফল ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে তিন ঘণ্টার মধ্যেই জানা যাবে। দুই একদিনের মধ্যেই পরীক্ষা কার্যক্রম চালু করা হবে বলে জানিয়ছেন ঢামেক অধ্যক্ষ ডা. খান মো. আবুল কালাম আজাদ।

সোমবার (৩০ মার্চ) গণমাধ্যমকে তিনি জানান, কলেজের ভাইরোলজি বিভাগ করোনাভাইরাস শনাক্তের পরীক্ষা কার্যক্রমের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে। কিছু মেশিনারিজ আমাদের এখানে রয়েছে, আরও কিছু মেশিনারিজ এসে গেছে। আশা করি দুই একদিনের মধ্যেই পরীক্ষা কার্যক্রম চালু করা হবে। মূল টেস্ট করতে তিন ঘণ্টা লাগবে।
তিনি জানান, শুধু ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আসা রোগীদের চিকিৎসকের নির্দেশনার ভিত্তিতে পরীক্ষা করা হবে। এ পরীক্ষায় কোনো রোগীর যদি পজেটিভ আসে, তাহলে ঢাকা মেডিকেল ছাড়া সরকারের বরাদ্দ করা হাসপাতালগুলোতে করোনাভাইরাসের চিকিৎসার জন্য তাকে সেখানে পাঠানো হবে। কলেজের চারতলায় ভাইরোলজিস্ট ও জীবাণু বিশেষজ্ঞদের নিয়ে টিম গঠন করে এ পরীক্ষা কার্যক্রম চালু হবে।

প্রতিদিন কি পরিমাণ রোগী পরীক্ষা করা সম্ভব হবে- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এটি কিটের ওপর নির্ভর করবে। ঢাকা মেডিকেল যেন স্বমহিমায় কাজ করতে পারে সেজন্য সবার সহযোগিতা চান তিনি।

এদিকে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ এবং গবেষণা ইন্সটিটিউটের (আইইডিসিআর) তথ্য অনুযায়ী দেশে আরও একজন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন করে করোনা ভাইরাসে ১ জন আক্রান্ত হলেও মারা যাননি কেউ। সুস্থ্য হয়েছেন ৪ জন। এ নিয়ে দেশে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪৯ জন। সুস্থ্য হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ১৯ জন।

ডা. মীরজাদী সেব্রিনা জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৫৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে এক জনের শরীরে করোনার সংক্রমণ পাওয়া গেছে। তার বয়স আনুমানিক ২০ বছর। যে চার জন করোনা মুক্ত হয়েছেন তাদের মধ্যে একজন চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন। এমনকি করোনা মুক্ত চার জনের মধ্যে বাকি দুই জনের বয়স ৮০ ও ৬০ বছর। এর মধ্য দিয়ে বয়স্কদের মধ্যে যে ভয় ছিল, সেটি আর থাকার কথা নয়।