গাজীপুরে গোসল করতে গিয়ে তুরাগ নদীতে ডুবে স্কুল ছাত্র দুই কিশোর নিখোঁজ হওয়ার ২৪ ঘন্টা পর সোমবার দুপুরে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে দুপুর পর্যন্ত নিখোঁজ অপর কিশোরের সন্ধান পাওয়া যায় নি।

উদ্ধারকৃতের নাম দুর্জয় নাথ মোহন্ত (১৪)। সে গাইবান্ধা জেলার সাদুল্লাপুর থানার ইছামত তাজপুর গ্রামের রবীন্দ্র নাথ মোহন্তের ছেলে। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের টান কড্ডা এলাকায় স্বপরিবারে বাস করেন রবীন্দ্র নাথ।

জিএমপি বাসন থানার এসআই আল আমিন ও স্থানীয়রা জানান, রবিবার দুপুরে বন্ধুদের সঙ্গে তুরাগ নদীতে গোসল করতে গিয়ে ¯্রােতের তোড়ে ভেসে গিয়ে পানিতে ডুবে নিখোঁজ হয় দু’কিশোর দুর্জয় (১৪) ও শাকিব (১৩)। তাদের সন্ধানে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরীরা নদীতে খোঁজ করতে থাকে। নিখোঁজ হওয়ার প্রায় ২৪ ঘন্টা পর সোমবার দুপুর ১২টার দিকে ঘটনাস্থল থেকে প্রায় ৬ কিলোমিটার ভাটিতে ইসলামপুর ইটভাটা এলাকায় নদীতে দুর্জয়ের লাশ ভাসতে দেখে এলাকাবাসী। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা নদী থেকে দুর্জয়ের লাশ উদ্ধার করে। তবে দুপুর পর্যন্ত নিখোঁজ অপর কিশোর শাকিব হোসেনের (১৩) সন্ধান পাওয়া যায় নি। সে জামালপুরের বকশীগঞ্জ থানার খামারগেদরা গ্রামের আবু সাঈদের ছেলে। আবু সাঈদ স্বপরিবারে গাজীপুরের নাওজোর এলাকায় বাস করেন। দুর্জয় ও শাকিব দু’জনই গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নাওজোড় পাথরপাড়া এলাকার প্রগতি মডেল স্কুলের ৮ম শ্রেনীর ছাত্র।

জিএমপি বাসন থানার ওসি রফিকুল ইসলাম ও নিহতের স্বজনেরা জানান, রবিবার দুপুর ১২টার দিকে ৬ কিশোর বন্ধু শাকিব, দুর্জয়, মিজান, আসিফ, ইসমাইল ও ইয়াসিন গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের টান কড্ডা ব্রীজ এলাকায় তুরাগ নদীতে গোসল করতে যায়। এসময় ওই ৬ কিশোর একটি মাত্র রাবারের টিউব (গাড়ী চাকার টিউব) নিয়ে নদীতে নেমে সাঁতরাতে থাকে। হঠাৎ নদীর তীব্র ¯্রােতে টিউবটি উল্টে গেলে শাকিব ও দুর্জয় টিউব থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পানিতে তলিয়ে নিখোঁজ হয়। এসময় অন্য ৪জন টিউব নিয়ে সাঁতরে তীরে উঠে আসে। তাদের ডাক চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে খোঁজ করেও নিখোঁজ দু’কিশোরের সন্ধান পায় নি। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল ঘটনাস্থলে এসে নদীতে নেমে নিখোঁজদের সন্ধান করতে থাকে। ঘটনার প্রায় ২৪ ঘন্টা পর সোমবার দুপুরে নিখোঁজ দুর্জয়ের লাশ উদ্ধার করা হয়। তবে নিখোঁজ অপর কিশোর শাকিবের সন্ধান এখন পর্যন্ত মিলেনি। তার সন্ধান করা হচ্ছে।