গাজীপুরের কালীগঞ্জে খুন ও গুমের ভয় দেখিয়ে নবম শ্রেণীর ছাত্রী এক কিশোরীকে (১৪) একাধিকবার ধর্ষণ করেছে তার প্রতিবেশী চাচাতো ভাই। এ ঘটনায় ওই স্কুল ছাত্রীর মা বৃহষ্পতিবার থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

অভিযুক্তের নাম নুরুল হাসান (৩৪)। সে কালীগঞ্জ উপজেলার জাঙ্গালিয়া ইউনিয়নের বাঙ্গালগাঁও এলাকার নুরুল ওয়াহাবের ছেলে।

কালীগঞ্জ থানার ওসি একেএম মিজানুল হক মামলার বরাত দিয়ে জানান, প্রায় দেড় বছর আগে হত্যার পর লাশ গুম করার ভয় দেখিয়ে কালীগঞ্জ উপজেলার শহীদ ময়েজ উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে তার প্রতিবেশী চাচাতো ভাই নুরুল হাসান জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। বিষয়টি কাউকে জানালে পরিবারসহ তাকে হত্যা করে লাশ গুম ফেলবে বলে হুমকি দেয়। এরপর থেকে প্রায় দেড় বছর যাবৎ ভয় দেখিয়ে ওই স্কুল ছাত্রীটির একাধিকবার শারিরিক সম্পর্ক স্থাপন করেছে যুবকটি। গত ১৫ এপ্রিল রাত সাড়ে আটটার দিকে ওই কিশোরীর ঘরে প্রবেশ করে পূনঃরায় জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে নুরুল হাসান। এ সময় কিশোরীর চিৎকারে স্বজনরা এগিয়ে আসলে অভিযুক্ত নুরুল হাসান দৌড়ে পালিয়ে যায়। ইতোপূর্বে ধর্ষণ হলেও তার কোন প্রমাণ/আলামত পাওয়া যায়নি। সর্বশেষ ১৫ এপ্রিল ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে ভিক্টিমের মা বাদি হয়ে বৃহস্পতিবার মামলা করেছেন। অভিযুক্তকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশের অভিযান অব্যহত রয়েছে।